সরকারি নীতিমালা অমান্য করে অবৈধ কোচিং চালালে কঠোর ব্যবস্থা : জেলা প্রশাসক


480 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
সরকারি নীতিমালা অমান্য করে অবৈধ কোচিং চালালে কঠোর ব্যবস্থা : জেলা প্রশাসক
সেপ্টেম্বর ২১, ২০১৫ ফটো গ্যালারি শিক্ষা সাতক্ষীরা সদর
Print Friendly, PDF & Email

সেলিম হোসেন :
অবৈধ কোচিং বাণিজ্য ও শিক্ষার মান উন্নয়ন শীর্ষক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার বিকাল ৪টায় জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক(সার্বিক) এএফএম এহতেশামূল হক।

সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসন ও জেলা শিক্ষা অফিসের আয়োজনে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক নাজমুল আহসান। এসময় উপস্থিত ছিলেন, জেলা শিক্ষা অফিসার কিশোরী মোহন সরকার, সাতক্ষীরা সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ লিয়াকত পারভেজ, দৈনিক পত্রদূতের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক এড. আবুল কালাম আজাদসহ সদর উপজেলার বিভিন্ন স্কুল-কলেজ এর প্রধান শিক্ষক ও কোচিং সেন্টারের পরিচালকবৃন্দ।

অনুষ্ঠানে জেলা প্রশাসক বলেন, শিক্ষা জাতিকে উন্নতির শিখরে পৌছে দেয়। শিক্ষাই জাতির মেরুদন্ড। আমি আমার মা-বাবার পরে শিক্ষকদের সম্মান করি। কিন্তু বর্তমানে কিছু শিক্ষকরা সরকারি নীতিমালা অমান্য করে অবৈধ কোচিং বাণিজ্য চালিয়ে যাচ্ছে। যেটি কোন নীতিবান শিক্ষকের পেশা হতে পারে না। যদি স্কুলের প্রধান শিক্ষকরা ৭০% হাজিরা নিশ্চিত করতে পারনে তাহলে শিক্ষার্থীদের খারাব করার কোন সম্ভবনাই থাকে না।

তিনি আরও বলেন, আমাদের চিন্তাধারা শিক্ষার্থীদের মান উন্নয়ন করা। তার মানে এই নয় যে, শিক্ষকরা এটাকে পণ্যে পরিণত করবেন। শিক্ষকরা তার নিজের প্রতিষ্ঠানের কোন শিক্ষার্থীকে প্রাইভেট পড়াতে পারবে না। আর যদি কোন শিক্ষক পড়াতে চান তাহলে নীতি মেনে পড়াতে হবে। সরকারি নীতি অনুযায়ী সকাল ৯ টা থেকে বিকাল ৫টা এর মধ্যে কোন প্রকার কোচিং চলানো যাবে না। স্কুল-কলেজ চলাকালীন সময়ে কোচিং চালালে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।