সাতক্ষীরকে সন্ত্রাস ও মাদকমুক্ত করতে খেলা ধুলার কোন বিকল্প নেই: কালিগঞ্জে পুলিশ সুপার


436 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
সাতক্ষীরকে সন্ত্রাস ও মাদকমুক্ত করতে খেলা ধুলার কোন বিকল্প নেই: কালিগঞ্জে পুলিশ সুপার
অক্টোবর ১০, ২০১৫ কালিগঞ্জ ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

সুকুমার দাশ বাচ্চু, কালিগঞ্জ :

সাতক্ষীরকে সন্ত্রাস ও মাদকমুক্ত করতে খেলা ধুলার কোন বিকল্প নেই । যুবসমাজকে বিপদগামী থেকে রক্ষা করতে হলে তাদেরকে  খেলাধুলার প্রতি বেশি বেশি মনোযোগী হতে হবে। শনিবার সন্ধায় কালিগঞ্জ সোহরওয়ারর্দী পার্কে পুলিশ সুপার কাপ আন্ত:ইউনিয়ন যুব কাবাডি খেলায়  খেলোয়াড়দের মাঝে পুরুষ্কার বিতারন অনুষ্ঠানে পুলিশ সুপার চৌধুরী মঞ্জুরুল কবির পিপিএম (বার) এসব কথা বলেন।

কালিগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ সুভাষ চন্দ্র বিশ্বাস  এর সভাপতিত্বে পুলিশ সুপার কাপ আন্ত:ইউনিয়ন যুব কাবাডি প্রতিযোগীতায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন কালিগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্জ শেখ ওয়াহেদুজ্জামান, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আলহাজ্জ সৈয়দ ফারুক আহম্মদ, কালিগঞ্জ সার্কেলের সহকারী পুুলিশ সুপার মীর মনির হোসেন জাতীয় দলের ক্রিকেট খেলোয়র মোস্তাফিজুুর রহমান ।

এসময় উপস্থিত ছিলেন কালিগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সভাপতি শেখ সাইফুল বারী সফু, সাংবাদিক সমিতির সভাপতি শেখ আনোয়ার হোসেন, চেয়ারম্যন শেখ আনছার উদ্দীন, চেয়ারম্যান আলহাজ্জ শেখ আব্দুল ওয়াহেদ মারুফ, চেয়ারম্যান শেখ এনামুল হোসেন ছোট, চেয়ারম্যান আব্দুল লতিফ মোড়ল, চেয়ারম্যান শেখ এবাদুল ইসলাম চেয়ারম্যান মুজিবর রহমান, চেয়ারম্যান খোরশেদ আলম, সম আছাদুর রহমান সেলিম, চেয়ারম্যান (ভারপ্রাপ্ত) জি এম রফিকুল ইসলাম প্রমুখ।

খেলায়  কালিগঞ্জ উপজেলার ১২ টি ইউনিয়নের ১২ টি পুরুষ ও মহিলা কাবাডি দল এই খেলায় অংশগ্রহন করে । কালিগঞ্জ থানা ও উপজেলা সকল ইউপি চেয়ারম্যানবৃন্দের আয়োজনে পুলিশ সুপার কাপ আন্ত:ইউনিয়ন যুব কাবাডি প্রতিযোগীতায় মহিল  দলের মধ্যে কুশুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদকে পরাজিত করে  মথুরেশপুর  ইউনিয়ন পরিষদ চ্যাম্মিয়নের গৌরব অর্জন করে।

অপর দিকে পুরুষ দলের মধ্যে তারালী ইউনিয়ন পরিষদকে পরাজিত করে কৃষ্ণনগর  ইউনিয়ন পরিষদ কাবাডি  দল চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করে। খেলা পরিচালনা করেন সাতক্ষীরার রেফারী মোঃ রফিকুল ইসলাম, ফিফা রেফারী শেখ ইকবাল আলম বাবলু ও সৈয়দ মোমেনুর রহমান। সহকারী রেফারী  ছিলেন সুকুমার দাশ বাচ্চু, শেখ মোদাচ্ছের হোসেন জান্টু, ইলাদেবী মল্লিক, জেবুন্নাহার ও কনিকা সরকার। স্কোরে ছিলেন শেখ মনিরুজ্জামান। খেলা দেখার জন্য প্রচুর দর্শকের সমাগম হয়।