সাতক্ষীরার নগরঘাটায় মেয়ের হাতে মা খুন !


1861 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
সাতক্ষীরার নগরঘাটায় মেয়ের হাতে মা খুন !
সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৮ তালা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

*সাতক্ষীরার পাটকেলঘাটায় জোড়া খুন !

ইব্রাহিম খলিল / অমিত কুমার ::
সাতক্ষীরার তালা উপজেলার পাটকেলঘাটা থানার নগরঘাটা গ্রামে মেয়ের হাতে মা মমতাজ বেগম (৫৫) খুন হয়েছে। মেয়ের লোহার রডের আঘাতে মা মমতাজ নিহত হয় বলে স্থানীয়রা জানায়। সোমবার রাতে পুলিশ লাশ উদ্ধার করেছে। তবে মেয়ে টুম্পার দাবী, তার মা ষ্টোকে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে।

অপরদিকে, সোমবার রাতে একই থানার ঝড়গাছা গ্রামের একটি ডোবা থেকে গোপাল ঘোষ (৫২) এর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তার গায়ে আঘাতে চিহ্ন রয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, নগরঘাটা গ্রামের স্বামী পরিত্যক্তা টুম্পা খাতুন সোমবার দুপুরে পারিবারিক কলহের জেরধরে তার মা মমতাজ খাতুন (৫৫) কে ঝগড়ার এক পর্যায়ে লোহার রড দিয়ে সজোরে মাথায় ও ঘাড়ে আঘাত করে। এতে মমতাজ খাতুন জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা তাকে প্রথমে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতাল ভর্তি করে। সেখানে তার অবস্থার আরো অবনতি হলে তাকে খুলনার মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পথিমধ্যে সন্ধ্যা ৭ টার দিকে তার মৃত্যু হয়। রাতেই তার লাশ গ্রামে এনে টুম্পা প্রচার করতে থাকে, তার মা ষ্টোকে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে। স্থানীয়রা জানতে পেরে পাটকেলঘাটা থানায় খবর দিলে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে লাশ উদ্ধার করে মর্গে পাঠায়। তবে এ ঘটনায় এখনও কেউ আটক হয়নি।

অপরদিকে, একই উপজেলার ঝড়গাছা গ্রামের গোপাল ঘোষ সোমবার সকালে জমিতে ধান দেখার কথা বলে বাড়ি থেকে বের হয়ে আর ফিরে আসেননি। অনেক খোজাখুজির একপর্যায়ে বাড়ির পাশে একটি বিলের ডোবায় তার মরদেহ ভাসতে দেখে পুলিশকে খবর দেয় স্থানীয়রা। পুলিশ তার মরদেহ সোমবার সন্ধ্যায় উদ্ধার করে। তার শরীরে আঘাতের চিহৃ রয়েছে। তাকে শ্বাসরোধে হত্যা করে ডোবায় ফেলে দেয়া হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

তালা সার্কেলের সহকারি পুলিশ সুপার অপু সরোয়ার জানান, পুলিশ পৃথক ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। মরদেহ দুটি উদ্ধার করা হয়েছে। তাদের গায়ে আঘাতে চিহ্ন রয়েছে। তবে এখনই কিছু বলা যাচ্ছে না। ময়নাতদন্তের পর বিস্তারিত জানা যাবে বলে তিনি জানান। তবে এসব ঘটনায় পুলিশ এখানো কাউকে আটক করেনি। তিনি বলেন, লাশ দুটি উদ্ধার করে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।
##