সাতক্ষীরার ভোমরা স্থল বন্দর সি.এন্ড.এফ এজেন্টস্ এসোসিয়েশনের অবৈধ এডহক কমিটির বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন


236 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
সাতক্ষীরার ভোমরা স্থল বন্দর সি.এন্ড.এফ এজেন্টস্ এসোসিয়েশনের অবৈধ এডহক কমিটির বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন
ডিসেম্বর ৪, ২০২১ ফটো গ্যালারি সাতক্ষীরা সদর
Print Friendly, PDF & Email

সাতক্ষীরার ভোমরা স্থল বন্দর সি.এন্ড.এফ এজেন্টস্ এসোসিয়েশনের অবৈধ এডহক
কমিটির বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহনের দাবীতে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত
সাতক্ষীরা ঃ সাতক্ষীরার ভোমরা স্থল বন্দর সি.এন্ড.এফ এজেন্টস্
এসোসিয়েশনের অবৈধ এডহক কমিটির বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহনের দাবীতে
সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। শনিবার সন্ধ্যায় সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবের
আব্দুল মোতালেব মিলনায়তনে উক্ত সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন, সি.এন্ড.এফ
এজেন্টস্ এসোসিয়েশনের সাধারন সম্পাদক মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান নাসিম।
তিনি তার লিখিত বক্তব্যে বলেন, ভোমরা স্থল বন্দরকে এবং মাননীয়
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নকে ব্যাহত করার জন্য একটি অব্যবসায়ী মহল
উঠে পড়ে লেগেছে। তিনি বলেন, গত ০৪/০৯/২০২১ ইং তারিখে ভোমরা সি.এন্ড.এফ
এজেন্টস্ নিজস্ব ভবনে নির্বাচনী সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত নির্বাচনী
সাধারণ সভায় অত্র এসোসিয়েশনের প্রায় ১৩৩ জন সদস্য উপস্থিত ছিলেন। এ সময়
আরও উপস্থিত ছিলেন সদর আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক
আহমেদ রবি, সাবেক সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি বীর
মুক্তিযোদ্ধা এ.এক.এম ফজলুল হক, জেলা প্রশাসকের প্রতিনিধি, পুলিশ সুপারের
প্রতিনিধি, পরিচালক ও রেজিষ্টার অব ট্র্রেড ইউনিয়ন্স খুলনার দুই জন
প্রতিনিধি ও সাংবাদিকসহ আরও অনেক গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। উক্ত নির্বাচনী
সাধারণ সভায় উপস্থিত সকল সি.এন্ড.এফ এজেন্টস্ সদস্য গণের সর্ব
সম্মতিক্রমে গঠনতন্ত্র মাফিক রাজু/নাসিম এর নেতৃত্বে ০৯ সদস্য বিশিষ্ট
একটি কার্যকরী পরিষদ গঠন করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। উক্ত সিদ্ধান্তকে
কতিপয় সিএন্ড.এফ অব্যবসায়ী অংশীদার পরিচালক ও রেজিষ্ট্রার অব ট্রেড
ইউনিয়ন্স, খুলনাকে প্রভাবিত করে গঠনতন্ত্র মাফিক কমিটিকে বৃদ্ধাঙ্গুল
দেখিয়ে রাতারাতি গত ১৪/০৯/২০২১ ও ১৪/১০/২০২১ একই স্মারকে দুটি অবৈধ চিঠি
এবং কোন সভা আহবান না করে গত ২৭/১১/২০২১ ইং তারিখে অবৈধ বিশেষ সাধারণ সভা
দেখিয়ে ৫ সদস্য এডহক কমিটি, তিন জন নাম বিহীন নির্বাচন পরিচালনা কমিটি গত
০১/১২/২০২১ইং তারিখের পত্রের মাধ্যমে দেখানো হয়েছে তার আদৌও কোন সত্যতা ও
অস্তিত্ব নাই। এই অবৈধ এডহক কমিটি বহিরাগত সন্ত্রাসী নিয়ে ভোমরা স্থল
বন্দরকে অশান্ত, জননেত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নকে ব্যাহত এবং ভোমরা
সি.এন্ড.এফ এজেন্টস এসোসিয়েশনের দখলে পায়তারা করছেন। যাহা দীর্ঘদিনের
এসোসিয়েশনের সুনামকে মর্যাদাহানি করেছেন। আমরা এই অবৈধ এডহক কমিটি মানি
না।
তিনি আরো বলেন, ভোমরা স্থল বন্দরের বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্পে বিভিন্ন
সংকটে সাংবাদিকরা ইতি পূর্বে যে অগ্রনী ভূমিকা রেখেছেন তা আমরা সবাই
অকপটে স্বীকার করি। ভবিষ্যতে এ ধারা অব্যহত থাকবে বলে আমরা বিশ^াস করি।
সংবাদ সম্মেলন থেকে তিনি এ সময় অবৈধ এই এডহক কমিটি ও নাম বিহীন নির্বাচন
পরিচালনা কমিটির বিরুদ্ধে আশু ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সাতক্ষীরা-(২) সদর
আসনের সংসদ সদস্য, জেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক,
সাতক্ষীরার জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার, সাতক্ষীরা চেম্বার অব কমার্স এন্ড
ইন্ডাষ্ট্রি এর সভাপতি, পরিচালক ও রেজিষ্ট্রার অব ট্রেড ইউনিয়ন্স খুলনার
আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন। একই সাথে তিনি ভোমরা স্থল বন্দরের আমদানী
রপ্তানী কার্যক্রম যাহাতে সচল থাকে তারও জোর দাবী জানান। সংবাদ সম্মেলনে
এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন, ভোমরা স্থল বন্দর সি.এন্ড.এফ এজেন্টস্
এসোসিয়েশনের সভাপতি কাজী নওশাদ দেলোয়ার রাজু, সহ-সভাপতি আবু মুছাসহ
অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।##

#