সাতক্ষীরার করোনা পরিস্থিতি নিয়ে জেলা প্রশাসনের সাথে জনপ্রশাসন সচিবের মতবিনিময়


465 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
সাতক্ষীরার করোনা পরিস্থিতি নিয়ে জেলা প্রশাসনের সাথে জনপ্রশাসন সচিবের মতবিনিময়
মে ২, ২০২০ ফটো গ্যালারি সাতক্ষীরা সদর
Print Friendly, PDF & Email

ফয়জুল হক বাবু ::

সাতক্ষীরা জেলায় করোনা পরিস্থিতি মোকাবেলা ও করোনা সংক্রমন ঠেকাতে করনীয় বিষয়ে জনপ্রশাসন মন্ত্রনালয়ের সচিব ও সাতক্ষীরা জেলার দায়িত্বপ্রাপ্ত করোনা সমন্বয়কারী শেখ ইউসুফ হারুনের সাথে সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসন ও জনপ্রতিনিধিদের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শনিবার দুপুরে সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক এস এম মোস্তফা কামালের সভাপতিত্বে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে এ সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন সাতক্ষীরা সদর আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি, তালা-কলারোয়া আসনের সংসদ সদস্য এড.মুস্তফা লুৎফুল্লাহ, খুলনা বিভাগীয় কমিশনার ড. মুহা. আনোয়ার হোসেন হাওলাদার, সাতক্ষীরা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মনসুর আহম্মেদ, সাধারন সম্পাদক মো: নজরুল ইসলাম, সাতক্ষীরা পৌর মেয়র তাসকীন আহমেদ চিশতি, সাতক্ষীরা সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান বাবু প্রমুখ।

করোনা সমন্বয় কমিটির সভা শেষে জনপ্রশাসন মন্ত্রনালয়ের সচিব শেখ ইউসুফ হারুন সাংবাদিকদের বলেন ‘ মূলত. তিনটি বিষয় নিয়ে সভায় আলোচনা হয়েছে। সাতক্ষীরা জেলার সর্বশেষ করোনা পরিস্থিতি, সরকার লকডাউন তুলে নেয়ার সিদ্ধান্ত নিলে সে-টি কি প্রক্রিয়ায় তুলে নেয়া হবে এবং সরকারি খাদ্য সহায়তা নিয়ে যাতে কোন ধরনের দুর্নীতি না হয় সেসব বিষয় নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে।

তিনি বলেন, সাতক্ষীরা জেলা অন্যান্য জেলা থেকে দরিদ্র মানুষের সংখ্যা অনেক বেশি, ৪৬ ভাগ। দারিদ্রতা অনুযায়ী কিভাবে বরাদ্দ বাড়ানো যায় সে বিষয়টি নিয়েও সভায় বিস্তর আলোচনা হয়েছে। তিনি বলেন, সাতক্ষীরার চিংড়ি শিল্প, সাতক্ষীরার আম এবং সাতক্ষীরার উৎপাদিত দুধ যাতে নষ্ট না হয় সে ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। এগুলো বাজারজাত করতে যা যা প্রয়োজন তা করা হবে।

সভা শেষে জনপ্রশাসন সচিব সাতক্ষীরার ভোমরা স্থল বন্দও পরিদর্শন করেন এবং আমদানি-রফতানি পরিস্থিতি নিয়ে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের সাথে কথা বলেন।

এর আগে সকালে জনপ্রশাসন সচিব শেখ ইউসুফ হারুন সাতক্ষীরা সার্কিট হাউজে সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে বেকার শ্রমিকদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করেন।

#