সাতক্ষীরায় পৈত্রিক সম্পত্তিতে কাল্পনিক মাজার সৃষ্টি করে অযাচিত হস্তক্ষেপের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন


281 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
সাতক্ষীরায় পৈত্রিক সম্পত্তিতে কাল্পনিক মাজার সৃষ্টি করে  অযাচিত হস্তক্ষেপের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন
জুলাই ১৬, ২০১৬ ফটো গ্যালারি সাতক্ষীরা সদর
Print Friendly, PDF & Email

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি :
সাতক্ষীরা সদর উপজেলার থানাঘাটা গ্রামে এক ব্যক্তির পৈত্রিক সম্পত্তিতে কাল্পনিক মাজার সৃষ্টি করে অযাচিত হস্তক্ষেপের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। শনিবার দুপুরে সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে ওই গ্রামের মৃত কাজী আবু ওমরের ছেলে অবসরপ্রাপ্ত ব্যাংক কর্মকর্তা কাজী আবু হায়দার এর প্রতিকার চান।

এ সময় লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, গত ১২ জুলাই শেখ ফারুক হোসেন নামে এক ব্যক্তি সংবাদ সম্মেলন করে তার পৈত্রিক সম্পত্তি নিয়ে অসত্য তথ্য উপস্থাপন করেন।

তিনি ব্যাখ্যা করে বলেন, বিবেচ্য বসতভিটার সম্পত্তি ১৯২৭ সালে তার দাদা মৃত কাজী রুহুল কুদ্দুসের নামে ডিএস রেকর্ড হয়। পরবর্তীতে ১৯৬২ সালে উক্ত সম্পত্তিতে খাজনা ধার্য করত দাদার নামে এসএ রেকর্ড হয়। দাদার মৃত্যুর পর ১৯৯০ সালে উত্তরাধিকার সূত্রে তার বাবা, চাচা ও দুই ফুফুর নামে রেকর্ড হয় এবং বিগত ১০০ বছরেরও বেশি সময় ধরে ওই সম্পত্তি তারা বংশানুক্রমে ভোগ দখল করছেন।

সংবাদ সম্মেলনে আরও বলা হয়, শেখ ফারুক হোসেন তাদের সরলতার সুযোগ নিয়ে ১২৩ দাগের উপর বৃহৎ বটগাছের পাশে কাল্পনিক মাজার সৃষ্টি করে মাজার কেন্দ্রিক ব্যবসা করার উদ্যোগ নেয় এবং তার এই অসৎ উপার্জনে বাধা দেওয়ায় সে তার ও তার পরিবারের সদস্যদের নামে মিথ্যা ও অসত্য অনেকগুলো মামলা দায়ের করে।

সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ ঘটনার প্রতিকার চেয়ে কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন। ##