সাতক্ষীরায় প্রাপ্ত বয়স্ক, বিধবা ও প্রতিবন্ধী ভাতার বহি বিতরণ


175 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
সাতক্ষীরায় প্রাপ্ত বয়স্ক, বিধবা ও প্রতিবন্ধী ভাতার বহি বিতরণ
আগস্ট ২৫, ২০২০ ফটো গ্যালারি সাতক্ষীরা সদর
Print Friendly, PDF & Email

মাহফিজুল ইসলাম আককাজ ::

সাতক্ষীরা সদর উপজেলার বাঁশদহা ইউনিয়নে ২০১৯-২০ অর্থবছরে অতিরিক্ত কোটায় প্রাপ্ত বয়স্ক, বিধবা ও প্রতিবন্ধী ভাতার বহি বিতরণ করা হয়েছে। মঙ্গলবার (২৫ আগস্ট) বেলা ১১টায় বাঁশদহা মির্জানগর আদর্শ মাধ্যমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে বাঁশদহা ইউনিয়নের প্যানেল চেয়ারম্যান মো. আরিজুল ইসলামের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সাতক্ষীরা ০২ আসনের সংসদ সদস্য নৌ-কমান্ডো ০০০১ বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি। প্রধান অতিথির বক্তব্যে এমপি রবি বলেন, ‘যারা দেশের উন্নয়ন ও মঙ্গল চায়না তারা ২১ আগস্টে জননেত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যার মাধ্যমে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগকে শেষ করতে চেয়েছিল। ঐসব মানবতার শক্রুদের প্রতিহত করতে হবে। দেশ, জাতি ও মানুষের কল্যাণে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ আরো অনেকদিন দেশের রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় থাকবে। মহান আল্লাহর রহমত আছে বলেই দেশের উন্নয়ন অগ্রযাত্রায় জননেত্রী শেখ হাসিনা দীর্ঘদিন রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় আছে। জননেত্রী শেখ হাসিনা সরকার স্বচ্ছতার লক্ষ্যে সকল সেবা মানুষের দোর গোড়ায় পৌছে দিয়েছেন। দেশের অনগ্রসর গোষ্ঠিকে এগিয়ে নিতে সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্ঠনীর মধ্যে অনার প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। এসময় উপস্থিত সকলের কাছে জননেত্রী শেখ হাসিনার দীর্ঘায়ু ও সুস্থ্যতা কামনা করেন এমপি রবি।’
বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেলা বঙ্গবন্ধু পরিষদের সভাপতি মকসুমুল হাকিম, সদর উপজেলা সমাজসেবা অফিসার শেখ সহিদুর রহমান, কৃষি ব্যাংক রেইউ বাজার শাখার ম্যানেজার জাহিদুল ইসলাম, মির্জানগর আদর্শ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ইজাজ আহমেদ, মির্জানগর মাদ্রাসার সুপার মাওলানা জালাল উদ্দীন, পৌর আওয়ামীলীগের সাবেক সহ-দপ্তর সম্পাদক ও সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবের সদস্য জিয়াউর বিন সেলিম যাদু, সাতক্ষীরা জেলা পরিষদের সদস্য ওবায়দুর রহমান লাল্টু, সাংবাদিক আব্দুল জালিল, কুশখালী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি ইউছুফ আলম প্রমুখ। সদর উপজেলার বাঁশদহা ইউনিয়নে ২০১৯-২০ অর্থবছরে অতিরিক্ত কোটায় প্রাপ্ত বয়স্ক ৬৫ জন, বিধবা ৬৩ জন ও ১শ’৯৪ জন প্রতিবন্ধীর মাঝে এ ভাতার বহি বিতরণ করা হয়। এসময় দলীয় ও জনপ্রতিনিধি এবং স্থানীয় নেতৃবৃন্দরা উপস্থিত ছিলেন।