সাতক্ষীরায় প্রিপেইড মিটার বসাতে গিয়ে নারী জনতার ধাওয়া খেলেন বিদ্যুত বিভাগের লোকজন


1148 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
সাতক্ষীরায় প্রিপেইড মিটার বসাতে গিয়ে নারী জনতার ধাওয়া খেলেন বিদ্যুত বিভাগের লোকজন
জুলাই ১, ২০১৯ ফটো গ্যালারি সাতক্ষীরা সদর
Print Friendly, PDF & Email

॥ বিশেষ প্রতিনিধি ॥

সাতক্ষীরায় প্রিপেইড মিটার বসাতে গিয়ে ক্ষুব্ধ জনতার ধাওয়া খেয়ে পালিয়ে গেছে বিদ্যুত বিভাগের লোকজন। তারা সাফ জানিয়ে দিয়েছেন ‘প্রিপেইড মিটার চাইনা। আগের মিটার থাকবে। না পারলে আমাদের বিদ্যুত সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেন’ ।
সোমবার সকালে সাতক্ষীরার রসুলপুর মেহেদিবাগ এলাকায় বাড়িতে বাড়িতে প্রিপেইড মিটার বসাতে গেলে তারা নারী জনতার বাধার সম্মুখীন হন। এ সময় বিদ্যুত বিভাগের লোকজনের সাথে সাতক্ষীরা পৌরসভার প্যানেল মেয়র ফারাহ দীবা খান সাথী, শফিক উদ দৌলা সাগর এবং পুলিশ সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। শুরু হয় বাক বিতন্ডা।
বিদ্যুত উন্নয়ন বোর্ডের আবাসিক প্রকৌশলী হাবিবুর রহমান জানান কয়েকদিন আগে প্রিপেইড মিটার লাগাতে গিয়ে বাধা পেয়ে ফিরে আসেন তার লোকজন। আজ নতুন করে দুই জন পৌর কাউন্সিলর ও পুলিশকে নিয়ে একই স্থানে মিটার বসাতে গেলে গ্রামের নারীরা একজোট হয়ে তাদের ধাওয়া করে। তাদের হাতে ছিল ঝাঁটা লাঠি ইট পাটকেল। তারা বলেছেন প্রিপেইড মিটারে অনেক টাকা কাটা যাচ্ছে। কোন খাতে কেনো এবং কতো টাকা যাবে তার কোনো হিসাব নেই। এমন অস্বচ্ছ অবস্থায় আমরা প্রিপেইড মিটার নিতে রাজী নই। তার চেয়ে আমাদের বিদ্যুত সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেন।
আবাসিক প্রকৌশলী বলেন পৌর কাউন্সিলরদের অনুরোধও শোনে নি তারা। এ সময় সার্কিট হাউস বকচরা মোড়ে তুমুল হট্টগোল হয়। বাধ্য হয়ে তার লোকজন ফিরে আসে।

#