সাতক্ষীরায় শেখ হাসিনার গাড়িবহরে হামলা মামলা : চতুর্থ দিনের মত যুক্তিতর্ক উপস্থাপন


136 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
সাতক্ষীরায় শেখ হাসিনার গাড়িবহরে হামলা মামলা : চতুর্থ দিনের মত যুক্তিতর্ক উপস্থাপন
জানুয়ারি ২১, ২০২১ জাতীয় ফটো গ্যালারি সাতক্ষীরা সদর
Print Friendly, PDF & Email

বিশেষ প্রতিনিধি :
সাতক্ষীরার কলারোয়ায় ২০০২ সালের ৩০ আগস্ট তৎকালীন বিরোধীদলীয় নেতা আওয়ামীলীগ সভানেত্রী ও বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গাড়িবহরে হামলার মামলায় চতুর্থ দিনের মত যুক্তিতর্ক উপস্থাপন করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার রাষ্ট্রপক্ষ ও আসামীপক্ষ যেসব যুক্তিতর্ক উপস্থাপন করেন সাতক্ষীরার চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ হুমায়ুন কবির তা রেকর্ড করেন।

রাষ্ট্রপক্ষে এ মামলা পরিচালনা করেন অতিরিক্ত এটর্নি জেনারেল এসএম মুনীর, ডেপুটি এটর্নি জেনারেল সুজিত মুখার্জী, ডেপুটি এটর্নি জেনারেল শাহীন মৃধা ও সাতক্ষীরার পিপি এ্যাড. আব্দুল লতিফ। অপরদিকে বিবাদীপক্ষে ছিলেন এ্যাড. শাহানারা আক্তার বকুল, এ্যাড. আব্দুল মজিদ, এ্যাড. মিজানুর রহমান পিন্টু ।

রাষ্ট্রপক্ষ বলেছে ২০ জন সাক্ষীর জবানবন্দিতে এবং পারিপাশির্^ক বিভিন্ন কারণে আসামিরা দোষী প্রমানিত হয়েছেন। অপরদিকে আসামি পক্ষ জানিয়েছে ২০০২ সালের ৩০ আগস্ট কলারোয়ায় তৎকালিন বিরোধী দলীয়নেতা শেখ হাসিনার গাড়িবহরে হামলা কোনো ঘটনা ঘটেনি। ওই দিন আওয়ামী ও বিএনপির নেতাকর্মী এবং সাংবাদিকদের মধ্যে মারামারি হয়েছে। এসব যুক্তি দেখিয়ে বিবাদিপক্ষ বলেছে কোনো আসামি দোষী প্রমানিত হননি।

উভয় পক্ষই ন্যায় বিচার পাবেন এই প্রত্যাশা করে রাষ্ট্রপক্ষের অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল এসএম মুনীর ও সাতক্ষীরার পিপি অ্যাড. আবদুল লতিফ বলেন আসামিরা সর্বোচ্চ সাজা পাবেন। অপরদিকে আসামি পক্ষের অ্যাড.শাহানারা আক্তার বকুল ও অ্যাড. আবদুল মজিদ বলেন সকল আসামি খালাস পাবেন। এর আগে ২০ জন সাক্ষী তাদের জবানবন্দি প্রদান করেন। আদালত তা রেকর্ডভূক্ত করে।

রাষ্ট্রপক্ষ সাক্ষীদের জবানবন্দী বিশ্লেষন করে বলেন, তারা মামলাটি প্রমান করতে সক্ষম হয়েছেন। অপরদিকে বিবাদীপক্ষ মামলার এজাহার, পুলিশের অভিযোগপত্র এবং সাক্ষীদের জবানবন্দীর মধ্যে ব্যাপক গরমিল ও অসংগতি রয়েছে উল্লেখ করে জানিয়েছেন, আসামীপক্ষ কেউই দোষী প্রমানিত হননি।

উল্লেখ্য ২০০২ সালের ৩০ আগস্ট তৎকালিন বিরোধী দলীয় নেতা আওয়ামী লীগ সভানেত্রী বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সাতক্ষীরায় মুক্তিযোদ্ধার ধর্ষিতা স্ত্রীকে হাসপাতালে দেখে মাগুরা ফিরে যাবার পথে কলারোয়ায় সন্ত্রাসীদের হামলা শিকার হন। এতে শেখ হাসিনা অক্ষত থাকলেও তার সফরসঙ্গী ফাতেমা জাহান সাথী, জোবায়দুল হক রাসেল, ইঞ্জিনিয়ার শেখ মুজিবর রহমান, শহিদুল হক জীবন, আবদুল মতিনসহ অনেকেই আহত হন। এ সময় বেশ কয়েকজন সাংবাদিকও হামলার শিকার হন। এ মামলায় পুলিশ তালা-কলারোয়া আসনের দুইবারের সাবেক সংসদ সদস্য কেন্দ্রীয় বিএনপি নেতা হাবিবুল ইসলাম হাবিব সহ ৫০ জনের বিরুদ্ধে চার্জশীট দেয়। তাদের মধ্যে টাইগার খোকন নামের একজন আসামি অন্য মামলায় জেলে রয়েছেন। বাকি ৪৯ জন ছিলেন জামিনে। আজ তাদের মধ্যে ৩৪ জন কাঠগড়ায় উপস্থিত ছিলেন। অপর ১৫ জন পলাতক রয়েছে।

#