সাতক্ষীরা জেলা জনসমিতি কর্তৃক সাতক্ষীরার ৪ কৃতী সন্তানকে স্বর্ণপদক প্রদান


349 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
সাতক্ষীরা জেলা জনসমিতি কর্তৃক সাতক্ষীরার ৪ কৃতী সন্তানকে স্বর্ণপদক প্রদান
ডিসেম্বর ৬, ২০১৫ দেবহাটা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

Debhata Pic 06-12-2015
দেবহাটা প্রতিনিধি :
নিজ নিজ ক্ষেত্রে অসামান্য অবদান রাখায় সাতক্ষীরা জেলার চার কৃতী সন্তানকে স্বর্ণপদক দিয়ে সম্মাননা প্রদান করা হয়েছে।
রাজধানীর ধানমন্ডিতে ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশন মিলনায়তনে ঢাকার সাতক্ষীরা জেলা জন সমিতি এবং সাতক্ষীরা ফাউন্ডেশন আয়োজিত স্বর্ণপদক অনুষ্ঠানে এ চার গুণীজনকে সম্মাননা জানানো হয়। সমাজসেবা ও চিকিৎসা ক্ষেত্রে বিশেষ অবদান রাখার জন্য জাতীয় অধ্যাপক ডা.এম আর খান, গণসংগীতশিল্পী মরহুম শেখ লুৎফুর রহমান, শিক্ষাবিদ অধ্যাপক ড. গোলাম রহমান ও ক্রীড়াবিদ হাবিবুর রহমান।

সাতক্ষীরা জেলা জন সমিতির সভাপতি রেজয়ান খানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বিশিষ্ট আইনজীবী ব্যারিষ্টার রফিকুল হক। বিশেষ অতিথি ছিলেন যথাক্রমে খুলনা বিভাগীয় কমিশনার আবদুস সামাদ, ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশনের সভাপতি কাজী রফিকুল আলম, বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের সদস্য অধ্যাপক মোহাব্বত খান। এছাড়া উপস্থিত ছিলেন অভিনেতা আফজাল হোসেন এবং সাতক্ষীরা ফাউন্ডেশনের সাধারণ সম্পাদক শেখ মোয়াজ্জেম হোসেন প্রমুখ।

অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন সাতক্ষীরা জেলা জন সমিতির সাধারণ সম্পাদক ইকবাল মাসুদ এবং তাকে সহযোগিতা করেন ডাঃ সোহেলী আহমেদ সুইটি। অনুষ্ঠানে ব্যারিষ্টার রফিকুল হক বলেন, “গুণীজনদের সম্মান না দেখালে কেউ তাকে সম্মান দেবে না। গুণী মানুষকে সম্মান দেখালেই সবাই আপনাকে সম্মান দেখাবে।
আজকে যাদের সম্মান জানানো হলো, সবাই এটা জানুক যে গুণীজনদের সম্মান জানানো হয়।
ডাঃ এম আর খান বলেন, আজকে আমি যে স্বর্ণপদক পেলাম, তাতে আমার কাজের স্বীকৃতি দেখতে পাচ্ছি।
ফলে ভবিষ্যতে আমার দায়িত্ব আরো বেড়ে গেল। খুলনা বিভাগীয় কমিশনার আবদুস সামাদ বলেন ‘‘আমি সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক ছিলাম আমি জানি সাতক্ষীরায় অনেক গুনী মানুষ জন্মগ্রহণ করেছেন এবং কৃষ্টি, সংস্কৃতি ও খেলাধুলায় সাতক্ষীরা অনেক সমৃদ্ধ জেলা হিসেবে সাতক্ষীরাকে তিনি স্মরন করেন।