সিরিয়ার বিদ্রোহীদের অস্ত্র সহায়তা যুক্তরাষ্ট্রের


291 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
সিরিয়ার বিদ্রোহীদের অস্ত্র সহায়তা যুক্তরাষ্ট্রের
অক্টোবর ১৩, ২০১৫ প্রবাস ভাবনা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

ভয়েস অব সাতক্ষীরা ডটকম ডেস্ক :
সিরিয়ায় ইসলামিক স্টেটের (আইএস) বিরুদ্ধে যুদ্ধরত বিদ্রোহীদের বিমান থেকে অস্ত্র দিয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সেনাবাহিনী।

পেন্টাগন কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে মঙ্গলবার বিবিসি বাংলার এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বেশ ক’টি মার্কিন সি-১৭ বিমান থেকে প্রায় ৫০ টনের মতো অস্ত্র ও গোলাবারুদ সরবরাহ করা হয়েছে। অস্ত্র সরবরাহকারী ওই বিমানগুলোর পাহারায় যুদ্ধবিমান নিয়োজিত ছিল।

ওই প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, মার্কিন বিমান থেকে সিরিয়ার হাসাকা প্রদেশে অস্ত্র ফেলা হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে হালকা অস্ত্র ও তার গুলি এবং হ্যান্ড গ্রেনেড। তবে কোন গোষ্ঠীর কাছে অস্ত্র সরবরাহ করা হয়েছে তা রেখেছে পেন্টাগন।

পেন্টাগন কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, সিরিয়ার বিদ্রোহী গোষ্ঠীগুলোকে প্রশিক্ষণ দেওয়ার একটি ব্যয়বহুল প্রকল্পও হাতে নিয়েছিল মার্কিন সেনাবাহিনী। তবে প্রায় ৫০ কোটি ডলারের ওই প্রকল্প পরে বাতিল করা হয়।

তারা আরও জানিয়েছেন, এখন প্রশিক্ষণের সেই অর্থ ইতোমধ্যেই যুদ্ধের ময়দানে ভালো অগ্রসর হয়েছে এমন বিদ্রোহী গোষ্ঠীর জন্য অস্ত্র সরবরাহে ব্যবহার করা হবে।

পেন্টাগনের দাবি, মার্কিন বিমান থেকে ফেলা অস্ত্রগুলো সফলভাবে সংগ্রহ করেছে বিদ্রোহী গোষ্ঠীর সদস্যরা।

এদিকে, সিরিয়াতে আইএসের অবস্থান লক্ষ্য করে রাশিয়ান যুদ্ধবিমানের হামলা অব্যাহত রয়েছে।

রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ইগর কনাশেনকভ জানান, লাটাকিয়া প্রদেশে মাটির নিচে তৈরি করা আইএসের বেশ কয়েকটি গোপন আস্তানা লক্ষ্য করে বোমা হামলা চালানো হয়েছিল। মহাকাশ থেকে স্যাটেলাইটের মাধ্যমে পাওয়া ছবি থেকে তাদের অবস্থান নিশ্চিত হওয়ার পরই এ হামলা চালানো হয়; এতে সেসব গোপন আস্তানা ও অস্ত্র ভাণ্ডার ধ্বংস করা হয়েছে।

রাশিয়া দাবি করছে, বোমা হামলার অব্যাহত থাকায় আইএস সদস্যদের মধ্যে যোগাযোগে ব্যাঘাত ঘটছে।—সুত্র:-সমকাল অনলাইন।