৩ রাজ্যের পুলিশ মিলেও খুঁজে পাচ্ছে না বিচারপতি কারনানকে


317 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
৩ রাজ্যের পুলিশ মিলেও খুঁজে পাচ্ছে না বিচারপতি কারনানকে
মে ১১, ২০১৭ প্রবাস ভাবনা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন ডেস্ক ::
আদালত অবমাননার দায়ে সাজাপ্রাপ্ত কোলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি সিআর কারনানকে খুঁজে পাচ্ছেন না দেশটির তিন রাজ্যের পুলিশ।

এরই মধ্যে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ মেনে তাকে গ্রেফতার করতে তামিলনাড়ুর চেন্নাই গেছে কলকাতা পুলিশ। কিন্তু তার কোনো খোঁজ এখনও পর্যন্ত পাওয়া যায়নি। এরপর চেন্নাই পুলিশকে বলা হয় তাদের সহযোগিতা করতে।

কলকাতার এই বিচারক তার সাজা ঘোষণার কয়েক ঘন্টা আগে চেন্নাই চলে যান। বুধবার তিনি চেন্নাইয়ের একটি গেষ্ট হাউজের বিল পরিশোধ না করেই বেরিয়ে যান। এরপর তার সেখানকার একটি মন্দির পরিদর্শনে যাওয়ার কথা।

চেন্নাইয়ে বিচারপতি কারনানকে না পেয়ে অন্ধ্রপ্রদেশ পুলিশের সহযোগিত চায় কলকাতা পুলিশ। কিন্তু তারাও এখন পর্যন্ত ওই বিচারপতির কোন সন্ধান দিতে পারেনি।

বিচারপতি কারনানের আইনজীবী ড. পিটার রামেশ বলেন, ‘তিনি (বিচারপতি কারনান) দেশ ছেড়েছেন আথবা দেশেই আছেন’। বিচারপতি কারনান রাষ্ট্রপতির কাছে আপিলের আবেদন চেষ্ট করতে চান।’

বিচারপতি কারনান তার বিলের কাগজপত্র প্রস্তুত করার জন্যই পুলিশ থেকে দূরে আছেন বলে দাবি করেন তার এই আইনজীবী।

দেশটিতে এই প্রথম কোনো বিচারপতির বিরুদ্ধে এ ধরনের ঐতিহাসিক রায় দিয়েছেন সুপ্রিম কোর্ট। কারনানের সন্ধানে চেন্নাইয়ের বিভিন্ন জায়গায় তল্লাশি শুরু করেছে সেখানকার পুলিশ।

ভারতের প্রধান বিচারপতি জেএস খেহরসহ সাত বিচারপতির বেঞ্চ মঙ্গলবার কারনানকে আদালত অবমাননার দায়ে ৬ মাস কারাদণ্ডের নির্দেশ দেন। সেই সঙ্গে অবিলম্বে তাকে গ্রেফতার করে সাজা কার্যকর করার নির্দেশ দিয়েছেন প্রধান বিচারপতি।

এর আগে ১ মে ৬১ বছর বয়সী কারনানের মানসিক স্বাস্থ্য পরীক্ষার নির্দেশ দিয়েছিলেন সুপ্রিম কোর্ট।

এরপর বিচারপতি কারনান ভারতের প্রধান বিচারপতিসহ ৮ বিচারপতিকে ৫ বছরের ‘সশ্রম কারাদণ্ডের’ নজিরবিহীন এক রায় ঘোষণা করেন। আর এর স্বল্প সময়ের ব্যবধানে কলকাতা হাইকোর্টের এই বিচারপতিকে ৬ মাসের কারাদণ্ড দেন দেশটির সর্বোচ্চ আদালত।