‘রক্ত দিন জীবন বাঁচান’


895 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
‘রক্ত দিন জীবন বাঁচান’
জুন ২, ২০১৮ তালা ফটো গ্যালারি সাতক্ষীরা সদর
Print Friendly, PDF & Email

॥শাহিদুর রহমান শাহিন ॥

রক্তদাতার এক ব্যাগ মূল্যবান রক্তদানের মাধ্যমেই মৃত্যুপথযাত্রী অন্য মানুষের জীবন বাঁচানো যেতে পারে। কেউ যদি স্বেচ্ছায় রক্ত দান করেন, তাহলে এতে একজন বিপদগ্রস্ত মানুষের বা মুমূর্ষু রোগীর জীবন যেমন বাঁচবে, তেমনি রক্তদাতা ও রক্তগ্রহীতার মধ্যে গড়ে উঠবে রক্তের বন্ধন। স্বেচ্ছায় রক্ত দিলে শুধু অন্যের জীবন বাঁচানো নয়, বরং নিজের জীবনও ঝুঁকিমুক্ত রাখা সম্ভব হবে। বিপন্ন মানুষের মহামূল্যবান জীবনের সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে পবিত্র কোরআনে ঘোষিত হয়েছে, ‘ কেউ কারও প্রাণ রক্ষা করলে সে যেন পৃথিবীর সমগ্র মানবগোষ্ঠীকে প্রাণে রক্ষা করল।’ (সূরা আল-মায়িদা, আয়াত: ৩২)

তিন বছর যাবৎ প্রায় প্রতি তিন মাস অন্তর অন্তর অসহায়,দুস্থ,মূমুর্ষ রুগিদের স্বেচ্ছায় রক্ত দান করে আসছে সাতক্ষীরা জেলার তালা উপজেলার ধানদিয়া ইউনিয়নের মানিকহার গ্রামের গোলাম হাফিজ সাগর।
কোন মূমুর্ষ রোগীর জন্য রক্তের প্রয়োজন হলে তার রক্ত যোগাড় করে দেওয়ার জন্য সে আপ্রান চেষ্টা করে।তার এই মহতি উদ্যেগের জন্য এলাকাবসিরা তাকে ভালবাসে এবং শ্রদ্ধা করে।

গোলাম হাফিজ সাগর ভয়েস অব সাতক্ষীরাকে বলেন,আমার তখনই সবচেয়ে বেশি ভাললাগে যখন কোনো অসহায়,অসুস্থ,দুস্থ,মূমুর্ষ গরিব মানুষের মুখে হাসি দেখতে পাই।এই ভাললাগা থেকেই আমি তিন বছর যাবৎ প্রায় প্রতি তিন মাস অন্তর অন্তর রক্ত দান করে থাকি। মূমুর্ষ রুগিদের স্বেচ্ছায় রক্ত দান করার পর তারা যখন মন থেকে আমার জন্য দোয়া করে তখন এক অসম্ভব ভাললাগা কাজ করে ।তখন আমি আরও বেশি অনুপ্রানিত হয় ।আমি নিজে রক্ত দেয় এবং অন্যদেরকেও অনুপ্রানিত করি রক্ত দেওয়ার জন্য।
তিনি আরও বলেন,রক্ত দিন জীবন বাঁচান । রক্ত দিলে শরিরের কোনো ক্ষতি হয়না।তাই সবার কাছে আমার অনুরোধ আসুন আমরা সবাই মিলে নিঃস্বার্থ ভাবে অসহায়, মূমুর্ষ রোগিদের পাশে দাড়ায়।ইসলামের দৃষ্টিতে মানুষের জীবন বাঁচাতে রক্তের বিকল্প নেই। রক্ত বেশি দিন সংরক্ষণ করে রাখা যায় না। তাই জরুরি মানবিক প্রয়োজনে স্বেচ্ছায় রক্তদানের জন্য জাতি-ধর্ম-বর্ণ-দল-মতনির্বিশেষে সবার মানসিক প্রস্তুত থাকা উচিত।

আবহমানকাল ধরে মানবদেহের জন্য রক্তদান এবং রক্ত গ্রহণের ব্যবহার চলছে। ‘আশরাফুল মাখলুকাত’ বা সৃষ্টির সেরা জীব হিসেবে মানুষের মহামূল্যবান জীবন ও দেহ সুরক্ষায় রক্ত অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ও অপরিহার্য তরল উপাদান। যেকোনো দুর্ঘটনায় শরীর থেকে রক্ত ঝরে গেলে দেহের অভ্যন্তরে অন্ত্র বা অন্য কোনো অঙ্গ থেকে রক্তক্ষরণ হলে অস্ত্রোপচারের জন্য রক্তের খুব প্রয়োজন।প্রসবজনিত অপারেশনের সময় বা বড় ধরনের দুর্ঘটনার মতো নাজুক অবস্থায় রক্ত দেওয়া অত্যাবশ্যকীয় হয়ে পড়ে। মানবদেহে রক্তশূন্যতার জন্য রক্ত গ্রহণের যেমন বিকল্প নেই, তেমনি রক্তের চাহিদা পূরণের জন্য রক্ত বিক্রয় বৈধ নয়। তবে বিনা মূল্যে রক্ত না পেলে রোগীর জন্য রক্ত ক্রয় করা বৈধ, কিন্তু এতে বিক্রেতা গুনাহগার হবে। নবী করিম (সা.) বলেছেন, ‘প্রত্যেক রোগের ওষুধ আছে। সুতরাং যখন রোগ অনুযায়ী ওষুধ গ্রহণ করা হয়, তখন আল্লাহর হুকুমে রোগী আরোগ্য লাভ করে।’ (মুসলিম)