794 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
জুলাই ১৪, ২০১৫ জাতীয় ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

ঈদের আগে আনা যাচ্ছে না ঘাতক কামরুলকে

রিয়াদ: সৌদি আরবে আটক শিশু সামিউল আলম রাজন হত্যাকাণ্ডের মূল হোতা কামরুল ইসলামকে ঈদের আগে দেশে ফেরত পাঠানো যাচ্ছে না। দু’তিন দিনের মধ্যেই সৌদিতে ঈদ উল ফিতরের ছুটি শুরু হয়ে যাবে বলে তাকে দেশে ফেরত পাঠাতে অপেক্ষা করতে হবে বলে জানানো হচ্ছে।

একটি দায়িত্বশীল সূত্র জানায়, আগামী দু’তিন দিনের মধ্যে সৌদির অফিস-আদালত ছুটি হয়ে যাবে। কামরুলকে ফেরাতে যে আনুষ্ঠানিক প্রক্রিয়া অবলম্বন করতে হচ্ছে, সে প্রক্রিয়া অবলম্বন করে তাকে দেশে ফেরানোর জন্য ঈদের আগে পর্যাপ্ত সময় নেই। তাই কামরুলকে দেশে ফেরাতে ঈদের পর পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে।

সূত্রটি বলছে, মঙ্গলবার (১৪ জুলাই) কামরুলকে স্থানীয় পুলিশ প্রশাসনের কাছে হস্তান্তরের পর পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে তাকে দেশে ফেরত পাঠানোর প্রক্রিয়া শুরু হবে। সেটা দুই সপ্তাহ থেকে এক মাস সময়ও লেগে যেতে পারে।

এ বিষয়ে সোমবার (১৩ জুলাই) রাতে জেদ্দা কনস্যুলেটের ভারপ্রাপ্ত কনসাল জেনারেল মোকাম্মেল হোসেন বাংলানিউজকে বলেন, আমরা চেষ্টা করছি যত দ্রুত সম্ভব তাকে দেশে ফেরত পাঠাতে।

কনস্যুলেটের কনসাল (ভিসা) আজিজুর রহমান বলেন, আমরা প্রথমে কামরুলকে সৌদি পুলিশের কাছে হস্তান্তর করবো। এরপর পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে যোগাযোগ করে তাকে দেশে পাঠানোর ব্যবস্থা করা হবে।

সোমবার (১৩ জুলাই) স্থানীয় সময় বিকেল ৫টায় জেদ্দার জামেয়া এলাকা থেকে দেশ ছেড়ে পালানো ঘাতক কামরুলকে আটক করা হয়। তাকে এখন জেদ্দা কনস্যুলেটে আটকে রাখা হয়েছে। মঙ্গলবার কামরুলকে স্থানীয় পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হবে।

রাজন হত্যার প্রধান আসামি কামরুল ১৫ বছর ধরে সৌদি নাগরিক মোছাইদ আল সোরাইসির বাসার গাড়িচালক হিসেবে কর্মরত ছিলেন।