এসএসএফে পরিচালক পদ চায় পুলিশ


264 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
এসএসএফে পরিচালক পদ চায় পুলিশ
জানুয়ারি ১২, ২০১৮ জাতীয় ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

অনলাইন ডেস্ক ::
স্পেশাল সিকিউরিটি ফোর্স-এসএসএফে অতিরিক্ত ডিআইজি পদমর্যাদার একটি পরিচালক পদের প্রস্তাব করেছে পুলিশ। এ ছাড়া প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলায় ‘ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট পুলিশ’ নামে নতুন ইউনিট গঠনের দাবিও জানানো হয়েছে। পুলিশ সপ্তাহ-২০১৮ উপলক্ষে গতকাল বৃহস্পতিবার রাজারবাগে সারাদেশের ঊর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তাদের সঙ্গে আইজিপির বৈঠকে এসব দাবি-দাওয়া উঠে আসে। সেখানে ৬৪ জেলার পুলিশ সুপার ছাড়াও পুলিশের সব ইউনিটপ্রধান উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠকে উপস্থিত একাধিক কর্মকর্তা জানান, কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিটের প্রধান ডিআইজি মনিরুল ইসলাম বলেন, জঙ্গিবাদ এখনও পুরোপুরি নির্মূল হয়নি। জঙ্গিদের ব্যাপারে সব ধরনের গোয়েন্দা তথ্য রাখতে হবে।

ময়মনসিংহের পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম বলেন, হাইওয়েতে সড়ক দুর্ঘটনা ঘটলে দ্রুত দুর্ঘটনাকবলিত যানবাহন উদ্ধার করার রেকার পুলিশের কাছে নেই। হাইওয়ে পুলিশের জন্য বড় রেকার কেনার কথা বলেন তিনি।

ঢাকা জেলার পুলিশ সুপার শাহ মিজান শাফিউর রহমান বলেন, ঢাকা জেলা ঘনবসতিপূর্ণ। এখানে সাত হাজার ৭০০ জনের জন্য একজন পুলিশ রয়েছে। ধামরাই ও নবাবগঞ্জ থানা ভেঙে আরও দুটি নতুন থানা তৈরি করা প্রয়োজন। এ ছাড়া কেরানীগঞ্জ, সাভার ও ধামরাইয়ে নতুন পুলিশ লাইন্স স্থাপনের প্রস্তাব দেন তিনি।

সিআইডির বিশেষ পুলিশ সুপার রোমানা আক্তার বলেন, রাজধানীতে সিআইডির ফরেনসিক ল্যাব বিভিন্ন জায়গায় ছড়িয়ে-ছিটিয়ে রয়েছে। ফরেনসিক কমপ্লেক্স তৈরি করে এক জায়গায় সব ল্যাব আনার কথা বলেন তিনি। এ ছাড়া এসএসএফে অতিরিক্ত ডিআইজির একটি পদের প্রস্তাব তুলে ধরেন এসপিবিএনের অতিরিক্ত ডিআইজি রেজাউল হায়দার। তিনি বলেন, এসএসএফের পরিধি বাড়ছে। এতে পুলিশের জন্য একটি পরিচালক পদ থাকতে পারে।

আরও এক পুলিশ কর্মকর্তা কেন্দ্রীয়ভাবে পুলিশ কনস্টেবল নিয়োগের প্রস্তাব দেন। এরপর আইজিপি বলেন, এসপিরা কনস্টেবল নিয়োগ করবেন, এ ধরনের আইনি বাধ্যবাধকতা রয়েছে। এ ছাড়া জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে পুলিশের কার্যক্রমকে সবার মাঝে আরও তুলে ধরতে ওভারসিজ পুলিশ বিভাগের প্রস্তাব আসে।

বৈঠকে পুলিশ মহাপরিদর্শক এ কে এম শহীদুল হক বলেন, জঙ্গি ও মাদকের বিরুদ্ধে আরও কঠোর হতে হবে। পুলিশের কোনো সদস্য মাদক কেনাবেচায় জড়িত থাকলে দৃষ্টান্তমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে। কমিউনিটি পুলিশিং কার্যক্রম আরও জোরদারের কথা বলেন তিনি। তিনি আরও বলেন, অন্যান্য সংস্থার তুলনায় পুলিশের গ্রেড-১ পদের সংখ্যা অনেক কম। দেশের উন্নয়নের সঙ্গে সঙ্গে পুলিশেরও যাতে উন্নতি হয়, এ ব্যাপারে মনোযোগী হতে হবে।