কলারোয়ার কাজীরহাট গার্লস হাইস্কুলে শিক্ষার্থীদের দুর্নীতি বিরোধী শপথনামা পাঠ


163 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
কলারোয়ার কাজীরহাট গার্লস হাইস্কুলে শিক্ষার্থীদের দুর্নীতি বিরোধী শপথনামা পাঠ
ফেব্রুয়ারি ১২, ২০১৮ কলারোয়া ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

কে এম আনিছুর রহমান,কলারোয়া(সাতক্ষীরা) প্রতিনিধি ॥
সাতক্ষীরার কলারোয়া উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির উদ্যোগে শিক্ষার্থীদের দুর্নীতি বিরোধী শপথ বাক্য পাঠ করানো হয়েছে। সোমবার সকাল ১০ টায় কলারোয়ার কাজীরহাট গার্লস হাইস্কুল চত্বরে দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সহযোগী প্রতিষ্ঠান সততা সংঘ’র শপথনামা পাঠ করান প্রধান শিক্ষক শামসুল হক। আলোকিত মানুষ হওয়ার ও দুর্নীতিমুক্ত সমাজ গড়ার দৃপ্ত প্রত্যয় ব্যক্তের মধ্য দিয়ে শিক্ষার্থীরা এ শপথবাক্য পাঠ করে। উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি আখতার আসাদুজ্জামানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত শপথপূর্ব সংক্ষিপ্ত আলোচনা পর্বে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে বক্তব্য দেন কলারোয়া উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সাধারণ সম্পাদক প্রধান শিক্ষক মুজিবুর রহমান, দুপ্রক সদস্য ও উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক জাহিদুর রহমান খান চৌধুরী, দুপ্রক সদস্য শিক্ষক উৎপল কুমার সাহ, শিক্ষক শাহরিয়ার সুমন প্রমুখ। উল্লেখ্য, তরুণ প্রজন্মের মাঝে সততা ও নিষ্ঠাবোধ সৃষ্টি করা এবং দুর্নীতির বিরুদ্ধে গণ সচেতনতা গড়ে তুলতে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীদের সম্পৃক্ত করার উদ্দেশ্যে ‘সততা সংঘ’ কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছে। পরে উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির নেতৃবৃন্দ স্কুল কমনরুমে প্রধান শিক্ষক শামসুল হকের সভাপতিত্বে সম্মানিত শিক্ষকবৃন্দের সাথে এক সৌজন্য মতবিনিময় সভায় মিলিত হন। প্রধান শিক্ষক শামসুল হক তাঁর বিদ্যালয়ে একটি ‘সততা স্টোর’ স্থাপনের প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।
###

কলারোয়ায় পাটের গুদামে আগুন ॥ ২৫ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি
কে এম আনিছুর রহমান,কলারোয়া(সাতক্ষীরা) প্রতিনিধি ॥
সাতক্ষীরার কলারোয়া বাজার সংলগ্ন শ্রীপতিপুরে একটি পাটের গুদামে আগুন দিয়েছে দুবৃর্ত্তরা। এ ঘটনায় প্রায় ২৫ লাখ টাকার ক্ষয় ক্ষতি হয়েছে।
গুদাম মালিক মফিজুল ইসলাম জানান, রোববার দিবাগত রাত একটার দিকে কে বা কারা তার গুদামে আগুন দিয়ে পালিয়ে যায়। গ্রামবাসী ছুটে এসে আগুন নেভানোর চেষ্টা করেন এবং সাতক্ষীরা ফায়ার সার্ভিসের খবর দেয় । খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের একটি টিম ঘটনাস্থলে পৌছে প্রায় এক ঘন্টা চেষ্টা করে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয়। এরই মধ্যে সবকিছু পুড়ে ছাই হয়ে যায়। তিনি আরো জানান, তার পাট গুদামে পাট ছাড়াও সার পোলট্রি ও মৎস্য ফীড বেচাকেনা হতো। সব কিছু আগুনে পুড়ে প্রায় ২৫ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।
এ ব্যাপারে মফিজুল ইসলাম কলারোয়া থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন বলে থানার অফিসার ইনচার্জ বিপ্লব কুমার নাথ জানান।