তালার আটারই গ্রামে হামলাকারী দূর্বৃত্তদের আটকের দাবীতে সংবাদ সম্মেলন


81 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
তালার আটারই গ্রামে হামলাকারী দূর্বৃত্তদের আটকের দাবীতে সংবাদ সম্মেলন
ফেব্রুয়ারি ১২, ২০১৮ তালা ফটো গ্যালারি
Print Friendly, PDF & Email

বি. এম. জুলফিকার রায়হান,তালা ::
তালার আটারই গ্রামে জমি দখলকে কেন্দ্র করে স্থানীয় প্রভাবশালী দূর্বৃত্তদের হামলায় সংখ্যালঘু ঋসি সম্প্রদায়ের নারী ও পুরুষ সহ ১০জন ব্যক্তি আহত হবার ঘটনায় তালা থানায় মামলা দায়ের হয়েছে। এঘটনায় পুলিশ কোহিনুর নামের এক ভাড়াটিয়া দূর্বৃত্তকে আটক করে জেল হাযতে প্রেরন করেছে। এতে প্রভাবশালী দূর্বৃত্তরা মামলা তুলে নিতে সংখ্যালঘু ঋসি সম্প্রদায়ের ক্ষতিগ্রস্থদের বাড়িতে যেয়ে হুমকি প্রদান করছে বলে অভিযোগ উঠেছে। ক্ষতিগ্রস্থ অমূল্য দাশ সোমবার সকালে তালা রিপোর্টার্স ক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে উক্ত অভিযোগ উত্থাপন করেন।
অমূল্য দাশ জানান, আটারই বিলের ১ একর ৭ শতক জমি পৈত্রিক সূত্রে প্রাপ্ত হয়ে মৃত. রাজেন্দ্র দাশ এর পুত্র অমূল্য দাশ গং দীর্ঘদিন ধরে ভোগ দখল করছে। এরইমধ্যে একই গ্রামের আকবর আলী শেখ’র পুত্র আজিজুর ইসলাম গং উক্ত জমি তাদের দাবী করলে দু’পক্ষের মধ্যে বিরোধ সৃষ্টি হয়। শনিবার সকালে উক্ত জমিতে চাষাবাদের কাজ করাকালীন আজিজুর ইসলাম ও তার ভাই সিরাজুল ইসলাম এর নেতৃত্বে ভাড়াটিয়া দূর্বৃত্তরা পরিকল্পিত ভাবে ধারালো অস্ত্র ও লাঠি-সোঠা নিয়ে অমূল্য দাশ (৬৫) ও তার পুত্র সুদেব দাশ (৩৫) কে কুপিয়ে ও পিটিয়ে হত্যার চেষ্টা করে। এসময় হামলাকারীদের কবল থেকে অমূল্য এবং তার পুত্র সুদেবকে উদ্ধার করতে আসলে পাচি দাশ, ঝর্না দাশ, আলোমতি দাশ, কুঞ্জ দাশ, বৃষ্ণ দাশ, শম্ভু দাশ ও ফকির দাশ সহ কমপক্ষে ১০ জন নারী ও পুরুষ আহত হয়। আহতদের মধ্যে অমূল্য দাশ ও তার পুত্র সুদেব দাশকে উন্নত চিকিৎসার জন্য তালা হাসপাতাল থেকে তৎক্ষনাত খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করা হয়। এদের মধ্যে অমূল্য দাশের অবস্থা এখনও আশংকাজনক রয়েছে। হামলার ঘটনায় ওই দিন দূর্বৃত্ত আজিজুর ইসলাম, সিরাজুল ইসলাম, আইনুদ্দীন শেখ এর পুত্র কোহিনুর শেখ, খোকন দাশ এর পুত্র দিবাস দাশ, চন্ডিপুর গ্রামের দবির উদ্দীন এর পুত্র আব্দুল বারিক সহ অজ্ঞাত নামা ১০/১২জনের নামে একটি মামলা (০২, তাং : ১০.০২.১৮) দায়ের করা হয়। এঘটনায় তালা থানা পুলিশ কোহিনুর শেখকে আটক করেছে। কিন্তু মামলা দায়ের করায় ক্ষিপ্ত হয়ে অন্য আসামী এবং তাদের পরিবারের সদস্যরা মামলা তুলে নিতে এবং জমি ছেড়ে চলে যাবার জন্য নানাবিধ হুমকি প্রদান করছে বলে-সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়। যে কারনে, অবিলম্বে সকল আসামীদের গ্রেফতারের জন্য পুলিশ প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করা হয়।

###