সাতক্ষীরায় এমপিও শিটে নাম না আসায় এক শিক্ষকের আত্মহত্যা


561 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
সাতক্ষীরায় এমপিও শিটে নাম না আসায় এক শিক্ষকের আত্মহত্যা
অক্টোবর ১০, ২০১৮ তালা ফটো গ্যালারি সাতক্ষীরা সদর
Print Friendly, PDF & Email

*বিদ্যালয়ের এমপিও থেকে নাম বাদ, কীটনাশক খেয়ে আত্মহনন করলেন শিক্ষক বিধান চন্দ্র ঘোষ

॥ বিশেষ প্রতিনিধি ॥

এমপিও (মান্থলি পে অর্ডার) থেকে নিজের নাম বাদ পড়ার কষ্ট সহ্য করতে পারেননি তিনি। অবশেষে ক্ষোভে ও দুঃখে কীটনাশক খেয়ে আত্মহনন করে নীরব প্রতিবাদ জানিয়ে চলে গেলেন কমপিউটার শিক্ষক বিধান চন্দ্র ঘোষ (৪৫)।
মঙ্গলবার রাতে এ ঘটনা ঘটে সাতক্ষীরার তালা উপজেলার ঝড়গাছা গ্রামে। বিধান ঘোষ স্থানীয় সেনেরগাঁতি মাধ্যমিক বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের কমপিউটার বিষয়ক শিক্ষক।
তার বিদ্যালয় ও পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে ২০০২ সালের ২৩ জুন যোগদানের পর থেকে তিনি সরকারি বিধি মোতাবেক বিদ্যালয় থেকে বেতন ভাতা পেয়ে আসছিলেন। সম্প্রতি তার নাম বিদ্যালয়ের মাসিক বেতন তালিকা এমপিও থেকে বাদ পড়ে। এ নিয়ে বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ মন্ত্রণালয়ে যোগাযোগ করে কোনো সন্তোষজনক জবাব পাচ্ছিলেন না। ফলে বেশ কয়েক মাস যাবত তিনি কোনো বেতন ছাড়াই শিক্ষকতা করে আসছিলেন। কিন্তু বেতন নতুন করে ছাড় না হওয়ার যন্ত্রনা শেষ পর্যন্ত আর সহ্য করতে পারেন নি তিনি।
বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আবদুল মজিদ ভয়েস অব সাতক্ষীরাকে  জানান,বিধান চন্দ্র ঘোষ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বাজার থেকে কীটনাশক কিনে আনেন। পরে তিনি সবার অজান্তে তা খেয়ে ফেলেন। কিছুক্ষন পর তাকে পড়ে থাকতে দেখা যায় বাড়ির পাশে একটি হলদি বাগানে। তাকে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসা হলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষনা করেন।
তিনি আরও জানান,বিধান চন্দ্রের লাশের ময়না তদন্ত সম্পন্ন হয়েছে।

বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক শহিদুল ইসলাম ভয়েস অব সাতক্ষীরাকে  জানান, তিনি ২০০২ যোগদান করে অদ্যাবধি সুনামের সাথে শিক্ষকতা করে আসছিলেন। কিন্তু ২০১৬ সালে বিদ্যালয়ের মিনিস্ট্রি অডিটের সময় তাঁর সনদ সংক্রান্ত ত্রুটি দেখা যায়। তিনি নিয়মিত বেতনও উত্তোলন করে আসছিলেন। কিন্তু চলতি বছরের সেপ্টেম্বর মাসের এমপিও সিটে তার নাম না থাকার বিষয়টি জানাজানি হলে মঙ্গলবার রাত আটটার দিকে অভিমান ও লোক লজ্জার ভয়ে তিনি বিষপান করেন। পরিবারের লোকজন তাৎক্ষণিক তাকে সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সকাল আটটার দিকে তার মৃত্যু হয়।

এ ব্যাপারে পাটকেলঘাটা থানার ওসি রেজাউল করিম ভয়েস অব সাতক্ষীরাকে  জানান, শিক্ষক বিধান চন্দ্র ঘোষ বিষপানে আত্ম হত্যা করেছে। এ ঘটনা নিয়ে থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

তার মৃত্যুর সংবাদে এলাকার সাধারণ মানুষ ও শিক্ষক সমাজে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

##