মদের জানা-অজানা ১০টি তথ্য


716 বার দেখা হয়েছে
Print Friendly, PDF & Email
মদের জানা-অজানা ১০টি তথ্য
আগস্ট ১৯, ২০১৫ ফটো গ্যালারি স্বাস্থ্য
Print Friendly, PDF & Email

ভয়েস অব সাতক্ষীরা ডটকম ডেস্ক :
উন্নত বিশ্বে মাদক সেবীর সংখ্যা ব্যাপক। ফলে এসব দেশে মদের চাহিদাও বেশি। মদ নেশা হওয়ায় এটা যেমন বাংলাদেশি অনেকের কাছে প্রিয় আবার অনেকে এটাকে সহ্যই করতে পারেন না। কিন্তু মজার বিষয় হলো এই মদেরও কিন্তু কিছু গুণ আছে, তবে সেটা নির্ভর করবে ব্যবহারের ওপর।

বিশ্বে কড়া মদের মধ্যে ভদকা বিশ্বে সবচেয়ে জনপ্রিয়। জল ও ইথাইল অ্যালকোহলের সাথে বিভিন্ন প্রকার ফ্লেভার মিশ্রিত করে ভদকা তৈরি হয়। সিরিয়াল, রাই, গম, আলু, মিষ্টি আলু, বা চিটাগুড় যেকোনো একটির গাজনকৃত তরল থেকে ভদকা তৈরি করা সম্ভব। আসুন এবার জেনে নেওয়া যাক ভদকার জানা অজানা ১০ তথ্য।

১) ভদকায় চিনি মিশিয়ে ছেটালে ফুল সতেজ থাকে।

২) জলের সঙ্গে ভদকা মিশিয়ে লাগালে চশমার কাঁচ খুব তাড়াতাড়ি দারুণ পরিষ্কার করা যায়।

৩) গদি, তোশক বা ম্যাটট্রেসের জীবাণুমুক্ত হয় ভদকার দ্বারা।

৪) রুপার গয়না পালিশ করে ঔজ্বল্য বাড়াতে ভদকা ব্যবহার করা হয়।

৫) ব্যান্ড-এইড চামড়ার সঙ্গে এমনভাবে আটকে গিয়েছে যা তোলা বেশ কষ্টকর হচ্ছে? তুলায় করে ভদকা লাগিয়ে দিলে তা সহজেই উঠে যায়

৬) জামা কাপড়ের দুর্গন্ধমুক্ত করতে দারুণ সাহায্য করে ভদকা।

৭) চুল পরিষ্কারে ভদকার কোন তুলনা হয় না।

৮) ঘরে মাউথওয়াশ তৈরি করতে ভদকার জুড়ি মেলা ভার।

৯) ঘরে খুব পোকামাকড় হয়েছে? ভদকা স্প্রে করলে সব পালাবে।

১০) কালো কাপড়ের রঙ একদম ঠিক রাখতে জলের সঙ্গে ভদকা মিশিয়ে লাগালে খুব কাজে লাগে।

(এ ছাড়াও রান্নাঘর পরিষ্কার করতে, জানলা-দরজা মুছতে, আইসপ্যাক তৈরি করতে, ওভেন পরিষ্কার করতে, চটচটে জিনিস তুলতে সাহায্য করে ভদকা)।—সুত্র বাংলাদেশ প্রতিদিন